সোমবার, ০৩ অক্টোবর ২০২২, ০৬:২৮ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ

কুষ্টিয়া নাগরিক পরিষদর সভাপতি ও এক করোনা যোদ্ধার মাসব্যাপী চলছে মানবসেবা,,হাওড় বার্তা 

কে এম শহীন রেজা
  • আপডেট সোমবার, ৩ মে, ২০২১
  • ৩৩৭ বার পড়া হয়েছে

 

কুষ্টিয়া জেলা প্রতিনিধি

কুষ্টিয়া নাগরিক পরিষদের সভাপতি সাইফুদ দৌলা তরুণ করোনার মহামারীর দুঃসময় ও পবিত্র রমজান উপলক্ষে মাসব্যাপী দরিদ্র অসহায় ও গরিব দুঃখীদের পাশে দাড়িয়ে নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। রমজানের শুরুতেই তিনি প্রতিদিন অসহায় ও নিরীহ মানুষদের মাঝে কুষ্টিয়া শহরের বিভিন্ন স্থানে ইফতার সামগ্রী বিতরণ করতে দেখা গেছে।

উল্লেখ্য যে, গত বছরের করোণা মহামারীর দুঃসময়ে তিনি মাসব্যাপী গরিব-দুঃখীদের মাঝে ইফতার সামগ্রী, করোণা সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ সহ গরিব-দুঃখীদের বাড়িতে বাড়িতে খাবার সামগ্রী পৌঁছে দিয়েছেন। তারই ধারাবাহিকতায় করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবেলার জন্য অসহায় গরীব দুঃখীদের মাঝে বিভিন্ন ধরনের খাবার সামগ্রী ঘরে ঘরে পৌঁছে দিচ্ছেন সেই সাথে করণা সুরক্ষা সামগ্রী ও পৌঁছে দিচ্ছেন গোপনে যা কোন ব্যক্তির চোখে পড়েনি।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে বেশ কয়েকজন গরিব-দুঃখী প্রতিবেদককে জানান, করোনার এই লকডাউনের মধ্যে তরুণ আমাদের যে সাহায্য-সহযোগিতা করে যাচ্ছেন আমরা তাঁর কাছে সারাজীবন ঋণী হয়ে থাকবো। এছাড়াও তিনি প্রতিদিনই কুষ্টিয়া শহরের বিভিন্ন স্থানে তার লোকবল দিয়ে রোজাদারদের মাঝে ইফতার সামগ্রী বিতরণ করে যাচ্ছেন। তিনি যেভাবে মানবসেবা করে যাচ্ছেন মহান সৃষ্টিকর্তাও তার প্রতি রহমত নাযিল করবেন বলে আমরা মনে করি।

এই পবিত্র রমজান মাসের গত ২৮শে এপ্রিল তারিখে আত্মকর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষ্যে দুইটা অসচ্ছল পরিবারের মাঝে সেলাই মেশিন তুলে দেন। তারা যেন উক্ত মেশিন দিয়ে নিজেরা স্বাবলম্বী হয়ে পরিবার পরিজন নিয়ে সুস্থভাবে জীবন যাপন করতে পারে। অন্যদিকে অর্থনৈতিকভাবে তারা যেন দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারে সে লক্ষ্যেই নাগরিক পরিষদের সভাপতি সাইফুদ দৌলা তরুণ দুটি অসহায় পরিবারের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ করেন।

এ বিষয়ে নাগরিক পরিষদের সভাপতি সাইফুদ দৌলা তরুণের সাথে সরাসরি কথা হলে তিনি বলেন, নাগরিক সেবা একটি মহামূল্যবান কর্ম যেটা আমি গতবারও করেছি এবারও করে আসছি। বর্তমান করোনার দ্বিতীয় ঢেউ রক্ষার জন্য আমি আমার সাধ্যমত সাধারণ জনগণকে সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে যতটুকু পারি ততটুকু সহযোগিতা করে যাচ্ছি আমার নাগরিক পরিষদের মাধ্যমে। সেই সাথে পবিত্র রমজান মাসে গত বছরের ন্যায় এবারও প্রতিনিয়ত আমি আমার পরিষদের লোকজন দিয়ে কখনো আমি নিজে গিয়ে অসহায়দের হাতে ইফতার সামগ্রী তুলে দিচ্ছি। এটা আমার কোন ব্যাক্তি ইমেজের জন্য নয়। মহান সৃষ্টিকর্তা আমাকে যেটুকু দিয়েছে তার মধ্যে থেকে কিছুটা বাঁচিয়ে রেখে সেই অর্থটুকু ব্যয় করছি এই নিরীহ অসহায় ব্যক্তিদের মাঝে।

সেলাই মেশিন বিতরনের বিষয়ে তিনি বলেন, গত ২৮ এপ্রিল তারিখে দুইটা পরিবারের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ করেছি। কারণ উক্ত সেলাই মেশিন দিয়ে তারা যেন নিজের পরিবারকে স্বাবলম্বী করে তুলতে পারে। অন্যদিকে দেশকে অর্থনৈতিকভাবে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারে সে লক্ষ্যেই আমি দুইটা পরিবারের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ করেছি। আপনারা দোয়া করবেন আমি যেন আগামীতে আরো মানব সেবায় নিয়োজিত থেকে সমাজের অবহেলিত মানুষের পাশে দাড়িয়ে কাজ করে যেতে পারি।

সর্বশেষ সংবাদ পেতে আমাদের সাথেই থাকুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

সব ধরনের সংবাদ পেতে ক্লিক করুন।
দৈনিক হাওড় বার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © 2019
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
jphostbd-2281