শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ০২:২৮ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
সুনামগঞ্জের বোরো ফসল নিয়ে উৎকণ্ঠায় কৃষক প্রধানমন্ত্রী হাওরবাসীর খোঁজ-খবর রাখছেন- রনজিত চন্দ্র সরকার এমপিসুনামগঞ্জে বই বিনিময় উৎসব অনুষ্ঠিতছাতকে মাটি ভরাট নিয়ে সংঘর্ষে নিহত ১, গ্রেপ্তার ১উৎসবমুখর পরিবেশে শান্তিগঞ্জ প্রেসক্লাবের বার্ষিক বনভোজন সম্পন্ন। জগন্নাথপুরে সঙ্গীত গাওয়াকে কেন্দ্র করে দুপক্ষের সংঘর্ষে আহত-২,গ্রেপ্তার-১.কক্সবাজারে ব্লু-গার্ডেদের দিনব্যাপী প্রশিক্ষণ কর্মশালার আয়োজনশান্তিগঞ্জে মানব সেবায় অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন ছাদিকুর রহমান বাছন। জামালগঞ্জ-সাচনাবাজার নদী পারাপারে জনদূর্ভোগ নিরসনে মানববন্ধনমিষ্টি সকাল হীমেল হাওয়া: আশিক হাসান সীমান্ত। সুনামগঞ্জে ষষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তি হতে পারেনি ২৯ হাজার ৪৫৫ শিক্ষার্থী।

মহেশখালীর কালারমারছড়ায় আগুনে পুড়ে ছাই ৭ টি দোকান! ক্ষয়ক্ষতি প্রায় ১ কোটি টাকা!

নুরুল বশর
  • সংবাদ প্রকাশ রবিবার, ২৫ এপ্রিল, ২০২১
  • ১৭২ বার পড়া হয়েছে

 

নুরুল বশরে তথ্য চিত্রে বিস্তারিত

মহেশখালীর কালারমারছড়া ইউনিয়নের দক্ষিণ চিকনীপাড়া বাজারে আগুন লেগে ৭ টি দোকান আগুনে ভস্মীভূত হয়েছে।

আজ ২৫ ই এপ্রিল সকাল ৭ টা ১৫ মিনিটের দিকে পার্শবর্তী গ্রাম তথা সোনার পাড়া গ্রামের স্থানীয় বাসিন্দা আব্দুল হাকিমের(৯৫) মালিকানাধীন মার্কেটে এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

পরে স্থানীয়দের দীর্ঘ প্রচেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। বৈদ‍্যুতিক শকড থেকেই অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত হয়েছে বলে ধারণা করছেন ব‍্যাবসায়ীরা।

ভস্মীভূত দোকানগুলোর মধ্যে মনজুর আলম এবং আবু ছিদ্দিকের ২ টি ফার্মেসি, নূর কবির এবং কফিল উদ্দিনের ২ টি মুদির দোকান, আব্দুল্লাহ আল মামুনের ১ টি কুলিং কর্ণার, আনচারুল করিমের একটি পান- সোপারির গোডাউন এবং জুয়েল কবিরের ১ টি ইলেকট্রিকের দোকান ছিল।

ক্ষতিগ্রস্ত ফার্মেসী মালিক মনজুর আলম জানান,
আমার দোকানে নগদ ৭ লক্ষ টাকা সহ প্রায় ১০ থেকে ১৫ লক্ষ টাকার মালামাল ছিল। ফায়ার সার্ভিসের লোকজন সঠিক সময় আসতে না পারায় আমাদের সম্পূর্ণ মালামাল পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। ৭ টি দোকানে সবমিলিয়ে প্রায় ১ কোটি টাকার মতো মালামাল পুড়ে গেছে। করোনাকালীন সময়ে আমাদের এই দূরবস্থা নিয়ে আমরা শঙ্কিত। আমরা সরকারের কাছে সহযোগিতা কামনা করছি।

এদিকে উপজেলার সর্ব দক্ষিণে কেবল একটি ফায়ার সার্ভিস থাকায়- ফায়ার সার্ভিসের কর্মকর্তারা দীর্ঘ প্রায় ২০ কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছনোর পূর্বেই সব পুড়ে যাওয়ায় ক্ষুব্ধ এলাকাবাসী এবং ব‍্যাবসায়ীরা।

তারা বলেন, আমরা মহেশখালীর উত্তর প্রান্তে একটি ফায়ার সার্ভিস স্থাপনের জোর দাবী জানাচ্ছি। যাতে ফায়ার সার্ভিসের সঠিক সেবার অভাবে ভবিষ্যতে আর কারো আমাদের মতো সর্বশূণ‍্য হয়ে পড়তে না হয়।

তবে আগুন নিয়ন্ত্রণ আনতে ১০ থেকে ২০জন মানুষ আহত হয় বলে জানা যায়,

সর্বশেষ সংবাদ পেতে চোখ রাখুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সব ধরনের সংবাদ
বাংলাদেশ চলচ্চিত্র ও প্রকাশনা অধিদপ্তর থেকে নিবন্ধনকৃত পত্রিকা। © All rights reserved © 2018-2024 Haworbarta.com
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
jphostbd-2281